ধর্ম প্রতিমন্ত্রীর মৃত্যুতে ডা: এস এ মালেকের শোক প্রকাশ।

ধর্ম প্রতিমন্ত্রী শেখ মোহাম্মদ আবদুল্লাহ (৭৪) মৃত্যুতে গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের উপদেষ্টামন্ডলীর সদস্য ও বঙ্গবন্ধু পরিষদের সাধারণ সম্পাদক ডা. এস এ মালেক। তিনি এক বিবৃতিতে বলেন, শেখ মোহাম্মদ আবদুল্লাহ একজন সৎ ও দায়িত্বশীল ব্যক্তি ছিলেন। রাজনীতির পাশাপাশি তিনি সমাজসেবামূলক কর্মকান্ডে জড়িত ছিলেন। তিনি মুক্তিযুদ্ধে গোপালগঞ্জ স্বাধীন হলে যে প্রশাসনিক বোর্ড ৩ সদস্য বিশিষ্ট গঠিত হয়েছিল তিনি তার একজন সদস্য ছিলেন। একজন ধর্মপ্রাণ মানুষ হিসেবে নিজেকে তিনি প্রতিষ্ঠিত করেছেন। একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আওয়ামী লীগ সরকার গঠন করলে তাকে ধর্ম মন্ত্রণালয়ে টেকনোক্রাট কোঠায় ধর্ম প্রতিমন্ত্রীর দায়িত্ব দেয়া হয়। তিনি অত্যন্ত সফলভাবে তার উপর অর্পিত দায়িত্ব নিষ্ঠার সাথে পালন করছিলেন। শনিবার রাত পৌনে ১২টার দিকে তিনি ঢাকার সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে হৃদযন্ত্রের ক্রিয়া বন্ধ হয়ে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাহি রাজিউন)।

শেখ মোহাম্মদ আবদুল্লাহ বঙ্গবন্ধুর আদর্শ ধারন করে ছাত্র জীবনেই রাজনীতির সঙ্গে যুক্ত হন। খুলনার আজম খান কমার্স কলেজ ছাত্র সংসদের প্রথম নির্বাচিত এই ভিপি ১৯৬৬ সালে ৬ দফার আন্দোলনেও সক্রিয়ভাবে অংশগ্রহণ করেন। যুবলীগের প্রতিষ্ঠাতা শেখ ফজলুল হক মনির নেতৃত্বে তিনি আওয়ামী যুব লীগে যোগদেন। গোপালগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এবং গোপালগঞ্জ জেলা আওয়ামী যুবলীগের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতির দায়িত্বে ছিলেন তিনি। এরপর কেন্দ্রীয় আওয়ামী যুবলীগের সদস্য হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। ১৯৬৯ সালের গণঅভ্যুত্থানে সক্রিয়ভাবে অংশ নেয়া এই রাজনীতিক ১৯৭১ সালে মুজিব বাহিনীর সাথে সম্পৃক্ত হয়ে মুক্তিযুদ্ধে অংশনেন। দেশ স্বাধীনের পর ১৯৭৩ সালের অনুষ্ঠিত বিসিএস পরিক্ষায় উত্তীর্ণ হলেও রাজনীতিতে ঝুকে পড়েন শেখ আব্দুল্লাহ। দীর্ঘদিন গোপালগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করেন। সর্বশেষে আওয়ামী লীগের বিগত কেন্দ্রীয় কমিটিতে ধর্ম বিষয়ক সম্পাদকের দায়িত্ব পালন করেন তিনি। মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর সংসদীয় আসন গোপালগঞ্জ টুঙ্গীপাড়া সংসদীয় আসনে প্রতিনিধি হিসেবে তিনি দায়িত্ব পালন করছিলেন। ডা. এস এ মালেক মরহুমের বিদেহী আত্মার শান্তি কামনা করছেন এবং শোক সন্তপ্ত পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জ্ঞাপন করেছেন।
বার্ত প্রেরক
আনন্দ কুমার নেন
মিডিয়া উইং

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*